সর্বশেষ সংবাদ
Home » রাজশাহী » বগুড়া শাজাহানপুরে হুমকীর মুখে আবাদী জমি ও ব্রীজ

বগুড়া শাজাহানপুরে হুমকীর মুখে আবাদী জমি ও ব্রীজ

মাসুম হোসেন, নিজস্ব প্রতিবেদকঃ বগুড়া শাজাহানপুরে ড্রেজার মেশিন বসিয়ে করতোয়া নদী থেকে অবৈধ ভাবে বালি উত্তোলনের মহাউৎসব চলছে। এতে হুমকির মুখে পড়েছে আবাদী জমি ও ব্রীজ তীব্র ক্ষোভ থাকলেও অসহায় হয়ে পড়েছে ভূক্তভোগিরা।
জানাযায়, করতোয় নদীর একাধিক স্থান থেকে ড্রেজার মেশিন বসিয়ে অবৈধ ভাবে বালি উত্তোলন করা হচ্ছে। সরকার দলীয় প্রভাবশালী নেতা এর সঙ্গে জড়িত থাকায় কিছইু বলতে পারছে না ভূক্তভোগিরা। উপজেলার আমরুল ইউনিয়নের ডেমাজানি ব্রীজের কাছ থেকে বালি উত্তোলন করছে কমর উদ্দিন ইসলামিয়া কলেজ কতৃপক্ষ। এতে ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে আবাদী জমি ও ব্রীজ। ওই কলেজের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি সরকারদলীয় প্রভাবশালী নেতা হওয়ায় অসহায় হয়ে পড়েছে কৃষকরা।
উপজেলার অড়িয়া ইউনিয়নের সি-ব্লক এলাকার নদীর অংশ থেকে বালি উত্তোলন করে এলজিএসপির বরাদ্ধের রাস্তা পাকা করনের কাজ করা হচ্ছে। এতে নদীর পাড় ভেঙ্গে আবাদী জমি গুলোর ব্যপক ক্ষতি হওয়ার আশংকা রয়েছে। তীব্র ক্ষোভ থাকলেও সরকার দলীয় প্রভাবশালী ওই নেতার কারণে নীরব ভূমিকা পালন করছে স্থানীয় কৃষকরা।
করতোয়া নদীর সি-ব্লক অংশ থেকে বালি উত্তোলন কার্যের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট মোত্তালিব হোসেনের সঙ্গে কথা বললে তিনি জানান, আওয়ামীলীগের ওই প্রভাবশালী নেতা বালি উত্তোলন করছে।
অবৈধ ভাবে বালি উত্তোলনের কারণ জানতে চাইলে কমর উদ্দিন ইসলামিয়া কলেজের অধ্যক্ষ এএইচএম শফিকুত তারিক জানান, কলেজ জাতীয় করণে কলেজ মাঠ বড় করতে জমি কেনা হয়েছে। জমি ভরাট করতে মাটির প্রয়োজন কিন্তু মাটির দাম বেশী হওয়ায় বালি উত্তোলন করা হচ্ছে। তাঁর কলেজের সভাপতি সরকার দলীয় প্রভাবশালী নেতা বিষয়টি তিনি দেখছেন।
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক ভূক্তভোগি কৃষক অভিযোগ করে বলেন, এভাবে বালি উত্তোলন করতে থাকলে তাদের আবাদী জমি গুলো নিচু হয়ে যাবে। সরকার দলীয় এক প্রভাবশালীনেতার কারণে তারা কিছুই বলতে পারছে না। ডেমাজানি ব্রীজের কাছ থেকে বালি উত্তোলনে ব্রীজের বড় ধরনের ক্ষতি হতে পারে।
উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ কামরুজ্জামান জানান, লিখিত অভিযোগ পেলে খুব দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

মন্তব্য

মন্তব্য

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*