Logo
সংবাদ শিরোনাম :
ফাপোর আন্তঃ ইউনিয়ন ফুটবল টুর্নামেন্টে অনুষ্টিত। টুঙ্গিপাড়া গ্রাম থেকে বিশ্বমানবতার নেত্রী ছাত্রদলে মিছিলে ছাত্রলীগের হামলার প্রতিবাদে বগুড়া জেলা ছাত্রদলের বিক্ষোভ মিছিল নওগাঁয় ভুট্টাক্ষেত থেকে শিশুর হাত-পা বাঁধা লাশ উদ্ধার গাজীপুরে গোডাউনে মিলল টিসিবি পণ্য চীনে ১৩৩ যাত্রী নিয়ে বিমান বিধ্বস্ত বগুড়ায় পিকনিকে হামলা করে যুবককে কুপিয়ে হত্যা একশত টাকা মূল্যমানের প্রাইজ বন্ডের ১০৬তম ‘ড্র’ অনুষ্ঠিত !! বগুড়া শহরে প্রথম চার তারকা হোটেল নাজ গার্ডেন বিক্রি বগুড়ার দুপচাঁচিয়া উপজেলার মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগের নেত্রী মাহবুবা নাসরিন রুপাকে জেলা আওয়ামী লীগ থেকে বহিষ্কার




চার’শ আশি টাকার জন্য সিজু হত্যা!

প্রতিবেদকের নাম :
আপডেট করা হয়েছে : মঙ্গলবার, ১৪ আগস্ট, ২০১৮

মাসুম হোসেন, স্টাফ রিপোর্টার: বগুড়া শাজাহানপুর উপজেলার গন্ডগ্রাম দক্ষিণপাড়া গ্রামে ট্রাক হেলপার জালেমিন ইসলাম সিজু (১৮) হত্যা মামলার একমাস পেরিয়ে গেলেও প্রধান আসামী রয়েছে ধঁরা ছোয়ার বাইরে। এখন পর্যন্ত মূল আসামী গ্রেফতার না হওয়ায় হতবাক হয়েছেন নিহত সিজুর স্বজনরা। এদিকে অন্য আসামীরা জামিনে বের হয়ে এসে এলাকায় প্রভাব বিস্তারের চেষ্টা করছে বলে এলাকাবাসীর অভিযোগ রয়েছে।
জানাগেছে, গত ১৩ জুলাই প্রতিপক্ষের ছুরিকাঘাতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় এক সপ্তাহ মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ে জালেমিন ইসলাম সিজু বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেন। ছুরিকাঘাতের ঘটনায় গত ৭ জুলাই নিহতের পিতা সহিদুল ইসলাম আটজন নামীয় ও দুইজনকে অজ্ঞাত আসামী করে শাজাহানপুর থানায় মামলা দায়ের করেন পরবর্তিতে মামলাটি হত্যা মামলা হিসেবে অন্তভূক্ত হয়।
নিহত সিজুর মা মিনা বেগম ও পিতা সহিদুল ইসলাম জানান, জুয়ার পাওনা টাকা কেন্দ্র করে তার ছেলে সিজু ও একই এলাকার আব্দুল মতিনের ছেলে রাবিকুল হাসান রাকিবের মধ্যে গন্ডগোলের সৃষ্টি হয়। প্রায় তিনমাস পর সিজুর পাওনা ১২শত টাকা পরিশোধ করে রাকিব। পরবর্তিতে সিজুর কাছ থেকে চারশত আশি টাকা পাওনাদার থাকে রাকিব। সিজু সময়মত রাকিবের পাওনা টাকা দিতে না পারায় প্রায় তাদের মধ্যে ঝগড়া-বিবাদ লেগেই থাকতো। এরই একপর্যায়ে গত ৬ জুলাই সন্ধ্যায় গন্ডগ্রাম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠে রাকিব তার ছেলে সিজুকে ছুরিকাঘাত করে এবং হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ১৩ জুলাই সিজুর মৃত্যু হয়। মামলার ছয়জন আসামী জামিনে বের হয়েছে। বর্তমানে ওই গ্রামে তারা নিরাপত্তাহিনতায় রয়েছেন। তার ছেলের চিহ্নিত খুনিকে দ্রুত গ্রেফতার ও শাস্তির দাবি জানিয়েছেন তারা। তারা আরও জানিয়েছেন, এভাবে অকালে আর কোন বাবা-মা যেন তাদের সন্তানকে না হারায়। সন্তান হারানোর বেদনা কত কষ্টদায়ক তা বলে বোঝানো যাবে না।
গ্রামবাসিরা জানিয়েছেন, সিজু হত্যা মামলার অনেক আসামী জামিনে বের হয়ে এসে গ্রামে প্রভাব বিস্তারের চেষ্টা করছে। ওই মামলার আসামীরা এলাকার বিভিন্ন অপরাধমূলক কর্মকান্ডের সঙ্গে জড়িত রয়েছে।
মামলার তদন্ত কর্মকর্তা শাজাহানপুর কৈগাড়ি পুলিশ ফাঁড়ির টিএসআই গোলাম মোস্তফা জানান, প্রধান আসামী রাকিবকে গ্রেফতারের চেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

মন্তব্য

মন্তব্য





এই ধরনের আরও খবর

ফেসবুকে আমরা




Theme Created By ThemesDealer.Com